কোহলির রাজ্য দখল করলো বাবর!

জুবায়ের সাজিদ
আইসিসি ওয়ানডে র‍্যাঙ্কিংয়ে বিরাট কোহলিকে সরিয়ে চূড়ায় উঠে এসেছে পাকিস্তান অধিনায়ক বাবর আজম।
প্রায় সাড়ে তিনবছর ওয়ানডে র‍্যাঙ্কিংয়ের এক নাম্বার স্থান ধরে রেখেছিলো বিরাট কোহলি। সময়ের সাথে পাল্লা দিয়ে বাবর আজম নিজেকে নিয়ে যাচ্ছেন অনন্য উচ্চতায়।

৮৩৭ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা সফর শুরু করে বাবর। সিরিজের প্রথম ওয়ানডে ম্যাচে ১০৩ রান করে কোহলিকে টপকে ৮৫৮ রেটিং পয়েন্টে পৌঁছে যান তিনি। দ্বিতীয় ম্যাচে ৩১ রান করায় ৬ পয়েন্ট হারিয়ে ৮৫২ পয়েন্টে নেমে যান। শেষ ম্যাচে দলকে সিরিজ জিতানো ৯৪ রান করার পর বিরাটকে টপকে এক নম্বরে চলে আসেন বাবর। এই মুহূর্তে কোহলির সংগৃহীত রেটিং পয়েন্ট ৮৫৭।

সাউথ আফ্রিকার সাথে ওয়ানডে ম্যাচে দারুণ দুটি ইনিংস খেলে বাবর ছাড়িয়ে গেছেন কোহলিকে। সেঞ্চুরিয়নে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সিরিজ নির্ধারণী ম্যাচে ৯৪ রানের ইনিংস খেলে দলের জয়ে বড় অবদান রাখেন বাবর। ১৩ রেটিং পয়েন্ট পেয়ে কোহলিকে ৮ রেটিং পয়েন্ট পিছনে ফেলে ৮৬৫ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে এখন ওয়ানডেতেও এক নাম্বারে অবস্থান করছেন তিনি। জহির আব্বাস,জাভেদ মিয়াঁদাদ,মোহাম্মদ ইউসুফের পর পাকিস্তানের চতুর্থ ক্রিকেটার হিসেবে ওয়ানডে ব্যাটসম্যানদের র‍্যাঙ্কিংয়ে শীর্ষে উঠলেন বাবর আজম।

একই দিনে আরও এক অনন্য কীর্তি গড়েন তিনি। পাকিস্তানের ৩য় খেলোয়াড় হিসেবে টি-টোয়েন্টিতে সেঞ্চুরি করেছেন। দক্ষিণ আফ্রিকার ওপেনারদের নৈপুণ্যে পাকিস্তানকে ২০৪ রানের বড় টার্গেট দিয়েছিলো দলটি। বাবর আজমের সেঞ্চুরি ও মোহাম্মদ রিজওয়ানের ফিফটিতে জয়ের দ্বারপ্রান্তে গিয়ে দলীয় ১৯৭ রানের সময় ১২২ রান করে আউট হন বাবর। টি-টোয়েন্টিতে অধিনায়ক হিসেবে দ্বিতীয় ইনিংসে এটিই সর্বোচ্চ রান। এদিন দারুণ সব দৃষ্টিনন্দন কাভার ড্রাইভে ১৫ চার ও ৪ ছক্কায় মাত্র ৫৯ বলে ১২২ রান করেন বাবর আজম।

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Latest Articles